লকডাউনকে উপেক্ষা করেই রাস্তায় মানুষজন, হতবাক আইসি সুরোজ থাপা ! বাজেয়াপ্ত বাইক

3
335

লকডাউনকে উপেক্ষা করেই রাস্তায় মানুষজন, হতবাক আইসি সুরোজ থাপা ! বাজেয়াপ্ত বাইক

BAHRS GLOBAL NEWS, 13 APR 2020
শান্তি রঞ্জন দাস, রায়গঞ্জ : দেশের প্রধানমন্ত্রি ও বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় যখন বারবার বলেই চলেছেন লকডাউন মেনে চলুন। খুব প্রয়োজন ছাড়া আপনারা ঘরের বাইরে বেড়বেন না। কিন্তু সোমবার লকডাউনের ২০ তম দিনে রায়গঞ্জ শহরের পরিবর্তনের অন্য ছবি দেখতে পাওয়া গেলো লকডাউন অমান্য করেই রাস্তায় মানুষজন। এক কথায় এই মারন ভাইরাস নিয়ে এখনো সজাগ নয় মানুষ। লকডাউন অমান্য করেই দেদারসে ঘুরে বেরাচ্ছে মানুষজন।
লকডাউনের পরিস্তিতি খতিয়ে দেখতে রাস্তায় নামে রায়গঞ্জ থানার আইসি সুরজ থাপা। আজ দুপুরে রায়গঞ্জ শহরের বিদ্রোহী মোড়ে আচমকাই অভিযান চালায় অর্থাৎ লকডাউনের নাকা চেকিং করে রায়গঞ্জ থানার আইসি সুরজ থাপা সহ পুলিশ দল। এরপর রাস্তায় বেরনো সকলকেই তিনি প্রশ্ন করেন কেন বেরিয়েছেন ? সিংহভাগই বলেন ওষুধ কিনতে। প্রেসক্রিপশন দেখতে চাইলে কেউ দেখাতা পাড়লেউ অনেকেই দেখাতে পারেনি।
এতো প্রচারের পরেউ মানুষ যখন এখনো সচেতন হননি তখন রায়গঞ্জ থানার আইসি জানান এরপর বিষয়টি আরো শক্ত হাতে সামলাবেন। যে সকল বাইক আরোহী যথাযথ যুক্তি দেখাতে পারেনি অর্থাৎ লকডাউনকে উপেক্ষা করে শুধুই ঘুরতে বেড়িয়েছিল সেই সকল বাইক আরোহী দের বাইক বাজেয়াপ্ত করা হয়। মানুষের ভেতর সচেতনতা বোধ নিয়ে এদিন কিছুটা আক্ষেপও প্রকাশ করেন আইসি সুরজ থাপা।
কারন লকডাউনের পর থেকে সোশ্যাল ডস্টেন্স মেন্টেন করার কথা ও করোনা ভাইরাসের সংক্রামণ নিয়ে রায়গঞ্জ থানা ও জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে যে ভাবে প্রচার চালানো হয় তার পরেউ এই চিত্র ধরা পড়ছে। উল্লেখ্য করোনা ভাইরাসের সংক্রামণ নিয়ে রায়গঞ্জবাসী কে সযাগ করতে রায়গঞ্জের রাজপথে গাড়ি নিয়ে রায়গঞ্জ থানার আইসিকে মাইকিং করতে দেখা গিয়েছে। রায়গঞ্জ থানার আইসি এদিন জানান, আগামীদিন বিষয়টি শক্ত হাতে সামলানো হবে। যে সকল বাইক বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে সেই সকল বাইক আরোহীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
এদিন এই বিষয়ে রায়গঞ্জ পুলিশ প্রধান সুমিত কুমার বলেন, মানুষ এখনো লকডাউনকে উপেক্ষা করে অকারনেই রাস্তায় বেরিয়ে পড়ছেন। পুলিশ প্রশাসনের পক্ষ থেকে বারংবার অনুরোধ করা হচ্ছে এই লকডাউনকে উপেক্ষা করবেন না। তবে এই লকডাউন বিরোধী মনভাবাপন্ন মানুষদের ঘর মুখি করতে আরো বেশি সক্রিয় হবে তাঁদের সার্থে।

3 COMMENTS

  1. hydra, конечно же, обеспечивает секретность в сети, и все же, этой защищенности не хватает и работать с платформой с простого интернет-браузера нереально. При входе на сайт через обычный для вас интернет-браузер online-провайдер проследит все проекты, на которые вы заходили, и столь сомнительная активность может заинтересовать правоохранительные службы. Потому необходимо подумать о особой защищенности.

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here