মানুষের সহযোগিতা প্রয়োজন, বেশিরভাগ জায়গায় ফেরানো হয়েছে জরুরি পরিষেবা : মমতা

0
169

মানুষের সহযোগিতা প্রয়োজন, বেশিরভাগ জায়গায় ফেরানো হয়েছে জরুরি পরিষেবা : মমতা

BAHRS GLOBAL NEWS, 26 MAY 2020
তীর্থঙ্কর মুখার্জি, কলকাতা : সোমবার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানান, রাজ্যের ৮০ শতাংশ এলাকায় জরুরি পরিষেবা ফিরিয়ে আনা হয়েছে । পাশাপাশি সাইক্লোন পরবর্তী পরিস্থিতিতে রাজ্যের স্বাভাবিক অবস্থা ফেরাতে সাধারণ মানুষের সহযোগিতা চাইলেন তিনি।
সরকারি কর্মী এবং যে সমস্ত পুলিশকর্মী, সেনাবাহিনী, জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলী বাহিনী ও রাজ্য বিপর্যয় এবং ওড়িশা বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীর সঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে “পরিকাঠামো স্বাভাবিক পরিস্থিতিতে ফিরিয়ে আনতে ও শান্তি ফেরাতে দিনরাত এক করে কাজ করছেন”, তাঁদেরও ধন্যবাদ জানান মুখ্যমন্ত্রী।
সোমবার মুখ্যমন্ত্রীর দফতরের তরফে জারি করা এক বিবৃতিতে তিনি বলেন, “বেশিরভাগ শহরাঞ্চল এলাকায় গুরুত্বপূর্ণ পরিষেবা ফেরানো গিয়েছে। বাকি এলাকাগুলিও খুব দ্রুত ঠিক হয়ে যাবে। সমস্ত বড় হাসপাতাল, জল সরবরাহ প্রকল্প, সেচ ও নিকাশী পাম্পিং ব্যবস্থা, বিদ্যুৎ সরবরাহ স্টেশন চালু করা হয়েছে। আমি এই লড়াইয়ে সবার একসঙ্গে সহযোগিতার আবেদন করছি”।
মুখ্যমন্ত্রী আরও জানান, বিদ্যুৎ দফতরের ১৫,০০০ আধিকারিক, জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলা বিভাগের ৩০টি দল, রাজ্য বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীর ৪১টি দল এবং ৩৫টি দমকল বাহিনী ছাড়াও পরিস্থিতি স্বাভাবিক করতে ১,২৫,০০০ পুলিশ আধিকারিককে মাঠে নামিয়েছে রাজ্য প্রশাসন।
মুখ্যমন্ত্রী বলেন, “আমি লক্ষাধিক রাজ্য সরকারি কর্মী ও পুলিশ আধিকারিক, যাঁরা সেনা, এনডিআরএফ, এসডিআরএফ, ওড়িশা সরকারের সঙ্গে হাতে হাত মিলিয়ে বিদ্যুৎ, জল সরবরাহ, রাস্তা পরিষ্কার, ত্রাণ বিলি পরিকাঠামোর পুনর্নির্মাণে যুক্ত তাঁদের স্যলুট জানাই”। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কথায়, “বাংলায় এই ভয়াবহ পরিস্থিতির পর ৮০ শতাংশ জায়গায় জরুরি পরিষেবা ফিরিয়ে আনায় আমি তাঁদের অভিনন্দন জানাই”।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here