গণপিটুনির ঘটনায় অসম সরকারকে ১ লক্ষ টাকা দেওয়ার নির্দেশ দিল মানবাধিকার কমিশন !

0
113

গণপিটুনির ঘটনায় অসম সরকারকে ১ লক্ষ টাকা দেওয়ার নির্দেশ দিল মানবাধিকার কমিশন !

অমিত শর্মা নয়া দিল্লি : অসমে বিফ বিক্রি ও খাওয়া আইনত বৈধ। বাজারে বিফ বিক্রির অপরাধে কিছু উত্তেজিত জনতা ৬৮ বছর বয়েসি শৌকত আলিকে ব্যাপক মারধর করে। গত বছর ২০১৯ সালের ৭ এপ্রিল সেই ঘটনার ভাইরাল ভিডিওতে দেখা যায় হাঁটু মুড়ে বসে তাঁকে ছেড়ে দেওয়ার জন্য শৌকত আলি প্রাণ ভিক্ষা চাইছে। কিন্তু চলছে অকথ্য অত্যাচার।
উত্তেজিত কিছু জনতা তাঁর কাছে বিফ বিক্রির লাইসেন্সস রয়েছে কিনা তা তো জানতে চায়নি উপরন্তু তাঁর কাছে জানতে চায়, সে বাংলাদেশি কিনা ? তাঁর নাম এনআরসিতে রয়েছে কিনা। এরপর জোর করে তাঁকে শুয়োরের মাংস খাওয়ানো হয় বলে অভিযো। সেই ঘটনায় জড়িত সন্দেহে ৫ জনকে গ্রেফতারও করে পুলিশ।
শেষমেশ বুধবার মানবাধিকার কমিশন রায় দেয়, যে ঘটনা ঘটেছে তাতে মানবাধিকার লঙ্ঘিত হয়েছে ওই ব্যাক্তি শৌকাত আলির। তাঁর জাত ,ধর্ম নিয়ে অপমান করা হয়েছে। অসম সরকারের তরফে ১ লক্ষ টাকার ক্ষতিপূরণ দিতে হবে শৌকত আলিকে। টাকা দেওয়ার প্রমাণ কমিশনের কাছে দাখিল করতে হবে ৬ সপ্তাহের মধ্যে।
এরপর গতবছর সেপ্টেম্বর মাসে বিরোধী নেতা দেবব্রত সৈকিয়ার অভিযোগ পেয়ে তদন্তে নামে মানবাধিকার কমিশন। এরপর চার সপ্তাহের মধ্যে ডিজিপি-র কাছে ঘটনার রিপোর্ট তলব করা হয়। শোকজ করা হয় মুখ্যসচিবকে। এই ঘটনায় তাঁর ভাই লিখিত অভিযোগও জানায় এই বিষয়ে। তাঁর ভাই বলেন, গত তিন দশক ধরে তাঁদের রান্না করা বিফ বিক্রির ব্যবসা। কনোদিন কিছু হয়নি কিন্তু সেই দিন আচমকাই এই ঘটনা ঘটে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here