এবারের ২১ জুলাইয়ের অন্যভূমিকায় অভিষেক !

0
388

তীর্থঙ্কর মুখার্জি, কলকাতা : এবারের ২১ জুলাইয়ের আরেকটি কারণে গুরুত্ব পূর্ণ। তার কারণ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি দলের সাধারণ সম্পাদক নির্বািচত হয়েছেন। এবং দায়িত্ব নেওয়ার পরেই অভিষেক অত্যন্ত পরিশীলিত রাজনীতিকের মতই বার্তা দিয়েছেন। তিনি হুঙ্কার দিয়ে বলেছেন এবার অন্য রাজ্যে তৃণমূল কংগ্রেস লড়বে। এবং সেই লড়াই হবে ক্ষমতা দখলের লড়াই। বিরোধী দলের জায়গার জন্য লড়বে না তৃণমূল কংগ্রেস।

তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক হওয়ার পরে এই প্রথম দিল্লিতে আসছেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। বুধবার তৃণমূলের শহিদ দিবসের অনুষ্ঠান সেরে রাতে দিল্লি আসার কথা তাঁর। বৃহস্পতিবার সাংসদ সুখেন্দুশেখর রায়ের মহাদেব রোডের বাসভবনে রাজ্যসভা এবং লোকসভার সমস্ত দলীয় সাংসদের সঙ্গে মধ্যাহ্নভোজনে থাকবেন অভিষেক। সেখানে দলের সংসদীয় রণনীতি এবং জাতীয় রাজনীতির প্রেক্ষাপট নিয়ে আলোচনা হবে বলে জানা গিয়েছে।

এবার ২১ জুলাই উদযাপনের বিশেষ তাৎপর্য হল অন্যরাজ্যেও তা উদযাপন করা হবে। ত্রিপুরা, দিল্লি সহ একাধিক জায়গায় ২১ জুলাইয়ে তৃণমূল কংগ্রেস নেত্রীর বার্তা পৌঁছে দেওয়া হবে। উত্তর প্রদেশ, গুজরাতেও হবে ২১ জুলাই উদযাপন। এছাড়াও মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বক্তব্য শোনা যাবে বিহার,অসম, ত্রিপুরা, তামিলনাড়ু, ঝাড়খণ্ড, মণিপুরে।

২১ জুলাইয়ের শহিদ দিবসে ভার্চুয়াল বক্তব্য রাখবেন তৃণমূল কংগ্রেস নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। প্রথমে তিনি জানিয়েছিলেন ২১ জুলাই বড় করে বিজয় দিবস পালন করা হবে। কারণ ভোটের রেজাল্ট বেরোনোর সময় চরমে ছিল করোনা সংক্রমণ সেসময় বিজয় দিবস উদযাপনে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছিলেন তিনি। তাই শহিদ দিবসে ব্রিগেডের মাঠে বড় করে আয়োজনের কথা বলেছিলেন তিনি। কিন্তু করোনার কারণে এবারও সেটা সম্ভব হচ্ছে না। ভার্চুয়াল মঞ্চেই বক্তব্য রাখবেন তৃণমূল কংগ্রেস নেত্রী।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here