একনাথ শিন্ডের U টার্ন ২৪ ঘন্টার মধ্যে! বিদ্রোহী সেনা বিধায়কের অফিস ভাঙচুরে পরে মহারাষ্ট্রে হাই অ্যালার্ট

0
543

অমিত শর্মা, নয়াদিল্লি : মহারাষ্ট্রের রাজনৈতিক অস্থিরতার পিছনে রয়েছে বিজেপি। এমনটাই অভিযোগ বিরোধী দলগুলির। চার দিন আগে থেকেই ওই কথা বলছিল কংগ্রেস, এনসিপির নেতারা। সেই পরিস্থিতি বৃহস্পতিবার বিদ্রোহী শিবসেনা নেতা একনাথ শিন্ডে বলেন, শক্তিশালী জাতীয় দল তাদের বিধায়কদের সমর্থন করছে। আর এদিন বিজেপি জানিয়ে দেয় মহারাষ্ট্রের বর্তমান রাজনৈতিক সংকটে তাদের কিছুই করার নেই। তারপরেই ইউটার্ন একনাথ শিন্ডের।

শুরু থেকেই অভিযোগ, একনাথ শিন্ডে বিজেপির হাতের পুতুল। বিরোধীরা অভিযোগ করেছে বিজেপির টাকায় শিবসেনা ও নির্দল বিধায়কদের লোভ দেখিয়ে নিয়ে য়াওয়া হয়েছে অসমে। তারই মধ্যে বৃহস্পতিবার একনাথ শিন্ডে মন্তব্য করেন, শক্তিশালী জাতীয় দল তাদের পিছনে রয়েছে। তারপরেই কংগ্রেস, এনসিপির মতো দলগুলিতে বিজেপিরে নিশানা করতে শুরু করে। এদিন বিজেপির তরফে জানিয়েদেওয়া হয়েছে মহারাষ্ট্রের বর্তমান রাজনৈতিক সংকটে তাদের কিছুই করার নেই।

এদিন সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলার সময় বিদ্রোহী শিবসেনা নেতা একনাথ শিন্ডে বলেন, কোনও জাতীয় দল তাদের সঙ্গে সম্পর্ক রাখছে না। প্রসঙ্গত বৃহস্পতিবারেই একনাথ শিন্ডে বলেছিলেন, শক্তিশালী জাতীয় দল তাঁদের বিধায়কদের সমর্থন করছে। ২৪ ঘন্টর মধ্যে একনাথ শিন্ডের এই ইউ টার্ন যথেষ্টই তাৎপর্যপূর্ণ।

তাঁকে এদিনও সাংবাদিকরা প্রশ্ন করেন, বিজেপি তাঁর গোষ্ঠীকে সমর্থন করছে কিনা। এব্যাপারে তিনি বৃহস্পতিবারের মন্তব্যের ব্যাখ্যা করে বলেন, তিনি বলেছিলেন একটি বড় শক্তি তাদেরকে সমর্থন করছে। তখন তিনি বালা সাহেব
ঠাকরে এবং প্রয়াত শিবসেনা নেতা আনন্দ দিঘের শক্তির কথা বলেছিলেন।

শুক্রবার চতুর্থ দিনে পড়েছে মহারাষ্ট্রের রাজনৈতিক সংকট। তা কবে মিটতে পারে, কেউই বলতে পারছেন না। চলছে দুপক্ষের চাপের খেলা। এই পরিস্থিতিতে রাজ্যে বিশেষ করে মুম্বইতে পুলিশকে সতর্ক থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। কেননা পুলিশ জানতে পেরেছেন বড় সংখ্যায় রাস্তায় নামতে পারেন শিব সৈনিকরা। ইতিমধ্যে কুরলার বিদ্রোহী বিধায়ক মঙ্গেশ কুডালকারের অফিসশিবসেনা কর্মীরা ভাঙচুর করেছে বলে অভিযোগ। সেই কারণে এই হাই অ্যালার্ট।

এদিন সন্ধেয় মাতোশ্রীতে এনসিপি প্রধান শরদ পাওয়ার, উপ মুখ্যমন্ত্রী অজিত পাওয়ার, ক্যাবিনেটমন্ত্রী জয়ন্ত পাতিল, দলের নেতা প্রফুল প্যাটেল উদ্ধব ঠাকরের বাসভবন মাতোশ্রীতে যান। সেখানে তাঁরা বেশ কিছুক্ষণ আলোচনা করেন। অন্যদিকে উদ্ধবপন্থী শিবসেনা নেতা শচীন আহির বলেছেন বিধায়করা না থাকলেও দল অক্ষত আছে।

শিবসেনা সাংসদ প্রিয়ঙ্কা চতুর্বেদী বলেছেন, শিব সৈনিকরা লড়াই করবে এবং জিতবে। তিনি আরও বলেছেন, বিদ্রোহীরা যা করছেন তা আইনি নয় এবং যা দাবি করছেন তা রাজনৈতিকভাবে সম্ভব নয়। উদ্ধব ঠাকরের সঙ্গে বৈঠকের আগে এনসিপি নেতা জয়ন্ত পাতিল বলেছেন, বিদ্রোহী এমভিএ বিধায়করা এখনও সমর্থন প্রত্যাহার করেনি। বিদ্রোহী বিধায়কদের মহারাষ্ট্রে আসা পর্যন্ত অপেক্ষা করতে বলেন তিনি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here