অবশেষে গ্রীষ্মের প্রবল দাবদাহ থেকে মুক্তি দক্ষীণবঙ্গে ! ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি, মৃত ১

0
624

তীর্থঙ্কর মুখার্জি, কলকাতা : তাপমাত্রার পারদ ৪০-র উপরে। গ্রীষ্মের দহনে পুড়ছিল দক্ষিণবঙ্গ। এদিন সন্ধ্যা নামতেই ঝড়-বৃষ্টি শুরু হয় বাঁকুড়া ,বিরভূম ,পূর্ব বর্ধমান ,নদিয়া ও হুগলির একাংশে। এর যেরে যেমন গরম থেকে কিছুটা স্বস্তি মিলল, তেমনি ক্ষয়ক্ষতির পাশাপাশি প্রাণহানির ঘটনাও ঘটল।

এদিন ঝড়ের দাপটে বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায় কাটোয়া স্টেশনে। ব্যাহত হয় ট্রেন চলাছল। রেলগেটের কাছে যানজটে আটকে পড়েন বহু মানুষ। বীরভূমের দুবরাজপুরে রাস্তায় ভেঙে পড়ে মোবাইল টাওয়ার। শুধু তাই নয়, জেলা জুড়েই ঝড়ে ক্ষতি হয়েছে প্রচুর মাটির বাড়ি। এমনকী ,ভেঙে গিয়েছে অনেক পাকা বাড়ির দরকা-জানলাও।

জানা গিয়েছে, এদিন সন্ধ্যায় কৃষ্ণনগরে স্কুটি চালিয়ে টিউশন পড়াতে যাচ্ছিলেন অবসরপ্রাপ্ত সরকারি কর্মী রবীন্দ্রনাথ প্রামানিক। ৩৪ নম্বর জাতীয় সড়কে রেলব্রীজের কাছে ঝড়ে গাছের ডাল ভেঙে পড়ে মাথায়। সঙ্গে সঙ্গে জ্ঞান হারান তিনি। হাসপাতালে নিয়ে গেলে রবীন্দ্রনাথকে মৃত বলে ঘোষণা করে চিকিৎসকরা। কৃষ্ণনগরে কিছু কিছু যায়গায় আহত হওয়ার খবর পাওয়া গিয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here